Tricks

লাইফটাইমের জন্য ফ্রিতে QR কোড তৈরি করুন কোনো রেজিষ্ট্রেশনের ঝামেলা ছাড়াই।


আসসালামু আলাইকুম

আশা করি সকলেই অনেক ভালো আছেন। আজকে আপনাদের মাঝে চলে আসলাম নতুন একটা টপিক নিয়ে। আমরা প্রায়ই কিন্তু QR কোড স্ক্যান করে থাকি। আবার হয়তো নিজেদেরও QR কোড তৈরি করার প্রয়োজন হয়। বিশেষ করে যারা গ্রাফিক্স ডিজাইন এর কাজ করেন তাদের কিন্তু প্রায়ই QR কোড তৈরি করার প্রয়োজন পড়ে ক্লায়েন্ট এর জন্য।

আজ থেকে প্রায় ১-২ বছর আগেও কিউআর কোড তৈরি করা বেশ সহজ ছিলো। আর এখনো সহজই আছে। কিন্তু এখন প্রেক্ষাপট একদম ভিন্ন হয়ে গেছে। যেখানে আগে আমরা গুগলে এমন অনেক ওয়েবসাইট পেতাম যেখান থেকে লাইফ টাইমের জন্য QR কোড ফ্রি তে তৈরি করা যেতো। সেই সকল ওয়েবসাইটের ৯০% এই এখন দেখা যায় তারা শুধু মাত্র ৭-১৫ দিনের ফ্রি ট্রায়াল দেয় এবং এরপর যদি টাকা দিয়ে একাউন্ট প্রিমিয়াম করা না হয় তাহলে সেই qr কোড টি অটোমেটিক নিষ্ক্রিয় হয়ে যায়।

এখন অনলাইনে এমন ওয়েবসাইট খুব কমই আছে যেখানে qr কোড লাইফটাইমের জন্য ফ্রিতে তৈরি করা যায়। এইতো কয়েকদিন আগেই আমি একজনকে একটা ওয়েবসাইট থেকে ফ্রিতে qr কোড তৈরি করে দিলাম (এই ওয়েবসাইট থেকে আমি প্রায় ২ বছর আগে নিজেও একটা qr কোড বানিয়েছিলাম। যেটা প্রায় ৩-৪ মাস অনায়াসে কাজে লাগে। পরে qr কোড টির প্রয়োজন হয় নি বিধায় সেটা ডিলিট করে দিয়েছিলাম।)

যেহেতু আমি নিজেও সেই ওয়েবসাইট থেকে qr কোড আগে বানিয়েছিলাম, তাই সেখান থেকেই আমার বন্ধুকেও qr বানিয়ে দিয়েছিলাম। কিন্তু ১৫ দিন পরে দেখি qr কোড আর কাজ করে না। পরে চেক করে দেখি যে একাউন্ট প্রিমিয়াম না করলে ১৫ দিনের বেশি qr কোড ব্যবহার করা যাবে না, সেখান থেকে। পড়লাম এক সমস্যায়। এরপর আরো ১০-১৫ টা ওয়েবসাইট থেকে ট্রাই করলাম। শেষ পর্যন্ত প্রায় একই অবস্থা ৭-১৫ দিনের ফ্রি ট্রায়াল, এরপর একাউন্ট প্রিমিয়াম করতে হবে।

তো আমার মনে হয় যে, এরকম আরো অনেকেই সেইম সমস্যা পড়েছেন। সেদিন ফেসবুকেও একটা গ্রুপে দেখলাম প্রায় সেম সমস্যা নিয়ে আলোচনা হচ্ছে। তাই অনেক ঘাটাঘাটি করে শেষ পর্যন্ত একটি দারুন ওয়েবসাইট পেলাম, যেখান থেকে ফ্রি তে লাইফ টাইমের জন্য qr কোড বানাতে পারবেন। তাই ভাবলাম এটা আপনাদের সাথে শেয়ার করি। তো চলুন দেরি না করে, ওয়েবসাইট টা থেকে কিভাবে ফ্রিতে লাইফটাইমের জন্য qr কোড তৈরি করতে হবে তা দেখা যাক।

 

লাইফটাইমের জন্য ফ্রিতে QR কোড তৈরি করুন

লাইফটাইমের জন্য হয়তো ফ্রি তে আরো অনেক সাইট আছে, কিন্তু সেগুলো খুজে পাওয়া বেশ মুশকিল। আমি অনেক খোজা খুজি করে একটা ওয়েবসাইট পেয়েছি। সেটা নিয়েই আজকে আপনাদের জানাবো। ওয়েবসাইট টি এর নাম হলো, QrGenerator.org. এই ওয়েবসাইটটি কিভাবে ব্যবহার করবেন, চলুন তা দেখে নেওয়া যাক।

১. প্রথমেই উপরের লিংক থেকে কিংবা https://qrgenerator.org এই লেখাটা কপি করে নিয়ে ওয়েবসাইট টিতে প্রবেশ করুন।

 

২. এই ওয়েবসাইটে প্রবেশ করার পর আপনারা নিচের মতো একটি পেজ পাবেন। সেখানে আপনারা নানান ধরনের অপশন পাবেন। (আমি Trickbd.com এই লিংককে qr কোড বানাবো, তাই লিংক অপশন সিলেক্ট করে রাখলাম)

 

পরবর্তী স্টেপে যাওয়ার আগে চলুন এই অপশন গুলোর কাজ সম্পর্কে একটু ছোট করে বলে নেই প্রথমে।

Link: যেকোনো লিংক দিয়ে qr কোড তৈরি করতে পারবেন। মানে আপনি qr তৈরির সময় যে লিংক দিবেন, আপনার qr কোড স্ক্যান করলে সেই লিংক ওপেন হবে।

Text: যেকোনো লেখাকে qr কোডে রুপান্তর করতে পারবেন।

Phone: qr কোড তৈরির সময় যে নাম্বার দিবেন আপনি, qr কোড স্ক্যান করলে সেই নাম্বার অটোমেটিক ডায়াল প্যাডে চলে আসবে।

Vcard: ভিসিটিং কার্ড কে qr কোডে রুপান্তর করতে পারবেন।

Video / Image: ছবি বা ভিডিওকে qr কোডে রুপান্তর করতে পারবেন।

Wifi: ওয়াইফাই এর পাসওয়ার্ড qr এ রুপান্তর করতে পারবেন। ফলে qr কোড স্ক্যান করলেই ওয়াইফাই কানেকশন পেয়ে যাবেন। (বর্তমানের সব ফোনেই এই সিস্টেম থাকে। তবে যাদের ফোনে নেই, তারা এটা ব্যবহার করতে পারেন)

বাদ বাকি অপশন গুলোও বেশ কাজের, নিজেরা চেক করে নিবেন। আমি সব গুলো সম্পর্কে বলতে গেলে ছোটো পোস্ট অনেক বড় হয়ে যাবে। তো এবার আবার মূল টপিকে ফিরে যাই।

 

৩. পছন্দের অপশনটি সিলেক্ট করার পর একটু নিচের দিকে স্ক্রল কলবেন। তাহলে নিচের স্ক্রিনশট এর মতো অপশন পাবেন। সেখান থেকে ১ম বক্সে লিংক দিতে বলছে (qr কোড স্ক্যান করলে যে লিংক ওপেন হবে, সেই লিংক দিতে হবে এখানে) । তো এখানে আমি Trickbd.com এর লিংক দিয়ে দিলাম। (২ নং স্টেপে আপনারা সে অপশন সিলেক্ট করবেন, সেই অপশন অনুযায়ী ইনফরমেশন চাইবে এই এ নং স্টেপে। আমি যেহেতু লিংক-কে কিউআর কোড বানাবো তাই আমার কাছে শুধু লিংকটাই চেয়েছে)

 

৪. এবার আপনারা যদি মনে করেন যে, আমার qr কোডকে কালো রঙের না করে অন্য রঙের করবো, তাহলে সেটা করার ও অপশন আছে এখানে। এর জন্য Color অপশনে ক্লিক করুন, তাহলে নিচের মতো আসবে। সেখান থেকে qr এর রং কে কাস্টমাইজ করতে পারবেন, এমনকি চাইলে qr কোডের ব্যাকগ্রাউন্ডে নিজের ফোনের গ্যালারি থেকে কাস্টম ছবিও যুক্ত করতে পারবেন।

 

৫. এবার যদি আপনার মন চায় যে, আমি আমার qr কোডকে সাধারণ qr কোড থেকে একটু ভিন্ন রকমের করে বানাবো, তাহলে সেই অপশন ও এখানে পাবেন। এর জন্য Design অপশনে ক্লিক করুন। বাদ বাকিটা নিচের স্ক্রিনশটে বুঝানো হয়েছে।

 

৬. আপনারা যখন ফোনের wifi এর পাসওয়ার্ড স্ক্যান করেন, তখন একটা জিনিস কি খেয়াল করেছে? যে qr কোডের একদম মাঝখানে wifi এর একটা লোগো দেওয়া থাকে! আপনারা কি চান যে আপনার এই qr কোডেও তেমন একটা লোগো থাকবে? তাহলে সেটাও পারবেন। এর জন্য Logo অপশনে ক্লিক করুন, নিচের মতো আসবে, সেখান থেকে নিজের মন মতো একটা logo সিলেক্ট করুন। আর মন মতো না পেলেও সমস্যা নাই, নিজের ফোনের গ্যালারি থেকে কাস্টম logo ও ব্যবহার করতে পারবেন। আবার লোগোর সাইজ ছোট বড় ও করতে পারবেন।

 

৭. তারপর যদি qr কোডে কোনো ফ্রেম যুক্ত করতে চান তাহলে fame অপশনে ক্লিক করে নিজের পছন্দ মতো frame ব্যবহার করতে পারবেন

 

সব কাজ শেষ হওয়ার পরে, আবার একটু নিচের দিকে স্ক্রল করুন, দেখবেন আপনার qr কোড রেডি হয়ে গেছে। এরপর সেটাকে Save বাটনে ক্লিক করবেন। এরপর Png, JPG, PDF অপশনে সেভ করার অপশন দিবে। সেখান থেকে পছন্দ মতো একটা অপশন থেকে ডাউনলোড করে নিবেন।

 

ডাউনলোড করার পরে, সেটা ঠিকভাবে কাজ করছে কি না, জানার জন্য সেটা স্ক্যান করে দেখতে পারেন। আমি Google Lens দিয়ে স্ক্যান করে দেখাচ্ছি আপনাদের।

 

শেষ কথা

এটা একটা ফ্রিতে লাইফটাইমের জন্য qr কোড তৈরি করার ওয়েব সাইট। তবে এটা যে কোনোদিন তারা প্রিমিয়াম করে দিবেন না, তার কোনো গ্যারান্টি নেই। কারণ এমন অনেক সাইট আছে যারা আগে ফ্রি ছিলো কিন্তু এখন প্রিমিয়াম। তবে এক যায়গায় দেখলাম এই ওয়েবসাইট টি থেকে প্রায় ২ বছর আগে তৈরি করার একটি qr কোড এখন ও সচল আছে। এক্ষেত্রে এটাকে কিছুটা বিশ্বাস করাই যায়।

আর এই ওয়েবসাইট এর মালিকরা মূল পেজেই বলে দিয়েছে যে এটা একটা ফ্রিতে qr কোড লাইফটাইমের জন্য তৈরি করার ওয়েবসাইট। তাই এটা প্রিমিয়াম যদি কোনোদিন হয়ও সেটা হওয়ার আরো অনেক দেরি আছে বলে মনে করি। আর তাছাড়া এটার সব থেকে বড় সুবিধা কোনো রেজিষ্ট্রেশন ছাড়াই qr কোড তৈরি করা যায়।

আশা করছি আপনাদের পোস্ট টি ভালো লাগবে। দেখা হবে পরবর্তী কোনো পোস্টে। সে পর্যন্ত সকলেই ভালো থাকবেন সুস্থ থাকবেন। আল্লাহ হাফেজ।



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button