মোবাইল দিয়ে টিকটক বানানোর সফটওয়্যার ডাউনলোড করুন


টিকটক বানানোর সফটওয়্যার : বর্তমানে অনেক টিকটক অ্যাপস রয়েছে। যেগুলো ব্যবহার করে, টিকটক ভিডিওতে বিভিন্ন ধরণের সাউন্ড ইফেক্ট, ভিডিও ইফেক্ট, স্টিকার, এনিমেশন ইত্যাদি প্রয়োগ করে, ভিডিও গুলো আকর্শষণীয় করে তোলতে পারি।

কিন্তু আপনি কোন ধরণের টিকটক বানানোর সফটওয়্যার ব্যবহার করে, সহজেই ভিডিও বানাতে পারবেন। সেই বিষয়ে হয়তো জানেন না।

তাই আপনাদের সুবিধার জন্য এখানে এমন কিছু জনপ্রিয় মোবাইল দিযে টিকটক বানানোর সফটওয়্যার সম্পর্কে বলব। যা একদম ফ্রিতে ডাউনলোড করে, প্রফেশনাল টিকটক ভিডিও তৈরি করতে পারবেন।

টিকটক বানানোর সফটওয়্যার
টিকটক বানানোর সফটওয়্যার

তাই আসুন আর সময় নষ্ট না করে, টিকটক বানানোর সফটওয়্যার কোন গুলো কোথায় থেকে ডাউনলোড করবেন। সেই বিষয়ে বিস্তারিত জেনে নেওয়া যাক।

মোবাইল দিয়ে টিকটক বানানোর সফটওয়্যার ডাউনলোড করুন

আমি এখন আপনাদের এমন কিছু মোবাইল দিয়ে টিকটক বানানোর সফটওয়্যার সম্পর্কে বলব। যা ব্যবহার করে, সহজেই ভিডিও তৈরি করতে পারবেন।

এছাড়া আমাদের ‍দেখানো অ্যাপস গুলো ব্যবহার করে, শর্ট ভিডিও তৈরি করা থেকে শুরু করে, সোশ্যাল মিডিয়া প্লাটফর্ম এর জন্য সুন্দর সুন্দর ভিডিও তৈরি করে আপলোড করতে পারবেন।

তো আসুন, টিকটক বানানোর জনপ্রিয় সফটওয়্যার সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে নেওয়া যাক।

Funimate Video Editor & Maker – টিকটক বানানোর সফটওয়্যার

Funimate হলো জনপ্রিয় একটি টিকটক বানানোর সফটওয়্যার। উক্ত টিকটক অ্যাপস ব্যবহার করে, আপনারা ভিডিও ইফেক্ট গুলোর পাশাপাশি অনেক ধরণের টেক্সট ইফেক্ট ব্যবহার করতে পারবেন।

টিকটক ভিডিও গুলোতে আকর্ষণীয় ব্যাকগ্রাউন্ড ব্যবহার করতে চাইলে, কোন প্রকার সমস্যা ছাড়াই, সুন্দর করে ব্যাকগ্রাউন্ড যুক্ত করতে পারবেন।

তাছাড়া মাল্টিপ্লেয়ার এডিটিং এর মতো উন্ন ফিচার ব্যবহার করতে পারবেন। এই অ্যাপস এ এডভান্স মাল্টি লেয়ার ফিচার দ্বারা ভিডিও এডিটিং করতে পারবেন কোন অভিজ্ঞতা ছাড়া।

এখন আপনি যদি Funimate অ্যাপস ডাউনলোড করতে চান? তাহলে গুগল প্লে স্টোরে গিয়ে Funimate লিখে সার্চ করুন। তারপরে, ইনস্টল বাটনে ক্লিক করে, ডাউনলোড করে নিন।

CapCut – Video Editor – টিকটক বানানোর সফটওয়্যার

CapCut টিকটক ভিডিও এডিটিং করার জন্য জনপ্রিয় একটি অ্যাপস। যা Bytedance দ্বারা ডেভেলপ করা হয়েছে। আপনারা মনে রাখবেন Bytedance হচ্ছে সেই কোম্পানি যা টিকটক অ্যাপ ডেভেলপ করেছে।

আপনারা CapCut অ্যাপটি গুগল প্লে স্টোর থেকে একদম ফ্রিতে ডাউনলোড করতে পারবেন।

বর্তমান সময়ে CapCut এটি এন্ড্রয়েড এর পাশাপাশি IOS এর জন্য ব্যবহার যোগ্য। এটি সেরা এবং আকর্ষণীয় টিকটক বানানোর জন্য অনেক ফিচার প্রদান করে যেমন- স্পিড চেঞ্জার, স্টিকার, ব্যাকগ্রাউন্ড মিউজিক ইত্যাদি ইফেক্ট।

আর এটি ব্যবহার করে, আপনারা 15 মিনিট এর ভিডিও বানাতে পারবেন। যা টিকটকে আপলোড করে, দ্রুত ভাইরাল হতে পারবেন।

InShot Video Editor – টিকটক বানানোর সফটওয়্যার

টিকটক ভিডিও তৈরি করার জন্য আরো একটি জনপ্রিয় অ্যাপস হলো InShot Video Editor. আপনারা InShot Video Editor ব্যবহার করলে অনেক ধরণের ফিচার দেখতে পারবেন। যেগুলো ব্যবহার করে, ভিডিও আকর্ষণীয় করে তোলতে পারবেন।

বিশেষ করে, এই অ্যাপসে আপনারা ভিডিও কেটে ছোট করার ফিচার পাবেন, ভিডিও মিউজিক যুক্ত করতে পারবেন, ভিডিওতে টেক্সট ‍যুক্ত করতে পারবেন।, স্টিকার লাগাতে পারবেন আরো বিভিন্ন ফিচার পেয়ে যাবেন। যা একদম ফ্রিতে ব্যবহার করতে পারবেন।

এখন এটি ব্যবহার করতে চাইলে, গুগল প্লে স্টোর থেকে ফ্রিতে ডাউনলোড করে নিন।

YouCut – Make TikTok video – টিকটক বানানোর সফটওয়্যার

YouCut ভিডিও এডিট করার আরো একটি ভালো অ্যাপস। যা দিয়ে আপনারা টিকটক, ইউটিউব, ইনস্টাগ্রাম ইত্যাদি প্লাটফর্ম এর জন্য আকর্ষণীয় ভিডিও বানাতে পারবেন।

টিকটক ভিডিও জন্য এই সফটওয়্যার ডাউনলোড করলে, আকর্ষণীয় শর্টস ভিডিও গুলো সহজেই বানাতে পারবেন।

উক্ত ভিডিও এডিটর দিয়ে আপনারা ইউনিক অনেক ইফেক্ট পেয়ে যাবেন। এবং ফ্রিতে অডিও/ গান সহ ভিডিও তৈরি করার সকল ইফেক্ট ব্যবহার করতে পারবেন।

এছাড়া ভিডিও তৈরি করার জন্য, আপনারা অনেক সুন্দর সুন্দর টেমপ্লেট পাবেন। যা ব্যবহার করে, মুহুর্তের মধ্যেই টিকটক ভাইরাল ভিডিও বানাতে পারবেন।

তাই আপনি যদি এটি দিয়ে কাজ করতে চান? তাহলে টিকটক বানানোর সফটওয়্যার ডাউনলোড করার জন্য আপনাকে প্রথমে প্লে স্টোরে যেতে হবে। তারপরে, YouCut – Make TikTok video লিখে সার্চ করতে হবে।

তারপরে, আপনার মোবাইল স্ক্রিনে, উক্ত সফটওয়্যার চলে আসবে। আপনারা ইনস্টল বাটনে ক্লিক করবেন। অল্প কিছু সময়ের মধ্যে মোবাইলে ডাউনলোড হয়ে ইনস্টল হয়ে যাবেন।

শেষ কথাঃ

এখন আপনারা যারা টিকটক ভিডিও তৈরি করে, ভাইরাল হতে চান? তারা চাইলে উপরে উল্লিখিত টিকটক বানানোর সফটওয়্যার গুলো গুগল প্লে স্টোর থেকে ফ্রিতে ডাউনলোড করে নিতে পারেন।

আর এই পোস্ট সম্পর্কে আপনার যদি কিছু জানার থাকে। আমাদের কমেন্ট করতে পারেন।

এছাড়া বিভিন্ন প্লাটফর্ম এর জন্য ভিডিও এডিটিং এবং ক্যামেরা অ্যাপস ডাউনলোড করতে চাইলে, আমাদের সাইটটি ভিজিট করুন।

ধন্যবাদ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *